• বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:২১ অপরাহ্ন
  • English Version

তরুণদের মেধাকে কাজে লাগিয়ে আইসিটি ইকোসিস্টেম গড়ে তুলতে হবে- পলক

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক / ৬৬ ফেসবুক শেয়ার
আপডেট সময় : রবিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
bd tech news

আমাদের তরুণরা অত্যন্ত মেধাবী উল্লেখ করে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযু্ক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন তাদের সুপ্ত প্রতিভা বিকাশের সুযোগ ও ক্ষেত্র সৃষ্টি করতে না পারলে মেধার যথাযথ বিকাশ ঘটবে না। তিনি বলেন সরকার, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও ইন্ডাস্ট্রি সম্মিলিত প্রচেষ্টায় তরুণদের যোগ্যতা ও মেধাকে সঠিকভাবে কাজে লাগিয়ে দেশে আইসিটি ইকোসিস্টেম গড়ে তুলতে হবে।

প্রতিমন্ত্রী আজ বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল মিলনায়তনে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের উদ্যোগে আয়োজিত আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অনুষ্ঠিত বিভিন্ন আইটি-বিষয়ক প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী দেশের তরুণ মেধাবী বিজয়ী শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

পলক বলেন প্রযুক্তিনির্ভর সমাজ বিনির্মাণের লক্ষে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আইসিটি বিষয়কে উচ্চমাধ্যমিক পর্যন্ত বাধ্যতামূলক করেছেন। তিনি বলেন শিশুদের দক্ষ মানবসম্পদ ও সমস্যা সমাধান মুখী চিন্তার বিকাশ ঘটাতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কারিকুলামে কোডিং চালু করার বিষয়ে কাজ শুরু হয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন চতুর্থ শিল্প বিপ্লব মোকাবেলায় আওটি, এআর, ভিআর, বিগডাটা অ্যানালেটিকস্‌, রোবটিকস্‌, ব্লকচেইন এবং নতুন আবিষ্কার ও উদ্ভাবনকে উৎসাহিত করতে দেশে ৩’শ স্কুল অব ফিউচার ও শেখ হাসিনা ইন্সটিটিউট অব ফ্রন্টিয়ার টেকনোলজি প্রতিষ্ঠা করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০৪১ সালে জ্ঞানভিত্তিক, উদ্ভাবনী জাতি ও স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা দিয়েছেন। তিনি বাংলাদেশকে বিশ্ব দরবারে প্রযুক্তি ক্ষেত্রে নেতৃত্বদানকারী দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক প্রয়াস নিয়ে কাজ করার আহবান জানান।

উল্লেখ্য, প্রতিযোগিতা সমূহের মধ্যে ছিল, “যুব প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের গ্লোবাল আইটি প্রতিযোগিতা ২০২১, ইন্টারন্যাশনাল রোবট অলিম্পিয়াড ২০২১, ইন্টারন্যাশনাল কলিজিয়েট প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা (আইসিপি) ওয়ার্ল্ড ফাইনালস ২০২১ এবং ইন্টারন্যাশনাল ব্লকচেইন অলিম্পিয়াড ২০২১”।

পরে, যুব প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের গ্লোবাল আইটি প্রতিযোগিতায়, ৪টি ক্যাটাগরির মধ্যে ৫ জন, ইন্টারন্যাশনাল রোবট অলিম্পিয়াডে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ২৯ জন, ইন্টারন্যাশনাল কলিজিয়েট প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা (আইসিপি) ওয়ার্ল্ড ফাইনালসে ২টি ক্যাটাগরিতে ৬ জন, ইন্টারন্যাশনাল ব্লকচেইন অলিম্পিয়াডে ৩ জন প্রত্যেককে ল্যাপটপ, ক্রেস্ট ও সার্টিফিকেট প্রদান করা হয়।

বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক ড. মো: আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন আইসিটি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের পরিচালক মোহাম্মদ এনামুল কবির, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক লাফিফা জামান।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ব্লক চেইন অলিম্পিয়াড চেয়ারম্যান হাবিবুল্লাহ এন করিম,বিসিএস সভাপতি শাহীদ উল মুনীর, বাক্কো সভাপতি ওয়াহিদ শরীফ ও সাধারণ সম্পাদক তৌহিদ হোসেন, সিএসআইডির নির্বাহী পরিচালক খন্দকার জহুরুল আলম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের পরিচালক প্রকৌশলী মোহাম্মদ এনামুল কবির। বক্তব্যের সময় গত বছরে আইসিটি বিশ্বে দেশের জোরালো অবস্থান তুলে ধরে বিশ্বয়ীদের তথ্য উপস্থাপন করেন তিনি।

এছাড়াও সম্মাননা প্রাপ্তদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন রোবট অলিম্পিয়াডে স্বর্ণজয়ী জাইমা যাহিন ওয়ারা এবং আন্তর্জাতিক প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতায় ‘এশিয়া ওয়েস্ট রিজিওন’র চ্যাম্পিয়ন বুয়েট দলের সদস্য এইচ এম আশিকুল ইসলাম।


আপনার মতামত লিখুন :

Comments are closed.

এ জাতীয় আরো খবর